February 21, 2024

কাস্টডি : তাসনুভা সোমা | Custody : Tasnuva Shoma

বইয়ের নামঃ কাস্টডি
লেখকের নামঃ তাসনুভা সোমা
ধরণঃ সামাজিক উপন্যাস
প্রকাশনীঃ ঘাসফুল
মলাট মূল্যঃ ৩৫০টাকা

লেখক পরিচিতি

তাসনুভা সোমা একজন ব্রিটিশ-বাংলাদেশী লেখক। তার জন্ম, পড়াশোনা ও বেড়ে ওঠা প্রাণচাঞ্চল্যে ভরপুর ঢাকা শহরের সুপরিচিত ও কর্মব্যস্ত এলাকা মতিঝিলে। পড়ালেখা মতিঝিল আইডিয়াল স্কুল অ্যান্ড কলেজ এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে (অর্থনীতি)। ঢাকা শহর ছেড়ে ব্রিটেনে আসার পর উচ্চশিক্ষা নিয়েছেন ব্যবসায়িক প্রশাসনে।

দীর্ঘ দিন যাবত বিলেতে বসবাস করলেও, বাংলা ভাষার প্রতি অপরিসীম টান থেকে বাংলায় সাহিত্য চর্চা করে গেছেন নিয়মিত। ছোটবেলা থেকেই লেখার অভ্যাস, তবে লেখক হিসেবে আত্মপ্রকাশ ২০১৯সালে। শখ থেকে তার লেখার শুরু এবং লিখছেন সাহিত্যের বিভিন্ন শাখায়।

তাসনুভা সোমার দ্বিতীয় উপন্যাস” কাস্টডি” পড়ার সৌভাগ্য হয়েছে। উপন্যাসটি ঘাসফুল প্রকাশনী থেকে প্রকাশিত।”কাস্টডি” হৃদয়ছোঁয়া ভালোলাগার একটি উপন্যাসের নাম।

বইটিতে দুইজন সিঙ্গেল প্যারেন্টের কথা তুলে ধরা হয়েছে। একজন শাম্মি, আরেকজন শাহান। সিঙ্গেল প্যারেন্টরা কিভাবে সন্তানদের বড় করে তুলছেন, সে বিষয়ে অনেক কথা উঠে এসেছে। সিঙ্গেল মাদারদের ক্ষেত্রে লড়াইটা তুলনামূলক অনেক বেশি কঠিন। হঠাৎ করে সন্তানের কাস্টডি দাবি করে জৈবিক পিতার আবির্ভাব সেই লড়াইকে আরও কঠিন করে তুলেছে।

কাস্টডি প্রতারণার শিকার এক নারীর গল্প, কাস্টডি আশাহত এক নারীর গল্প, কাস্টডি অবহেলিত এক নারীর গল্প, কাস্টডি দৃঢ়চেতা এক মায়ের গল্প, কাস্টডি লড়াকু এক মায়ের গল্প, কাস্টডি নীরবে স্নিগ্ধতা ছড়ানো এক প্রেমের গল্প যে প্রেমে যৌবনের উন্মাদনা নয় থাকে শ্রদ্ধা ও নির্ভরশীলতা।

তাসনুভার সহজাত লেখনী, যথাযথ উপস্থাপনে শাম্মির জীবন সংগ্রাম অসাধারণভাবে ফুটে উঠেছে কাস্টডিতে। খুশবুর মা শাম্মি যেন আবহমান বাংলার নারী হৃদয়ের মাঝে মাতৃত্বের সত্যিকারের খুশবু স্বরূপ।নিজের দেশের বাইরে বিদেশে ভিন্ন কালচারেও তার কোন ব্যত্যয় ঘটেনি। নিজে স্বাবলম্বী হয়ে মেয়ে কে আদর স্নেহে বড় করা একজন সিঙ্গেল মাদারের প্রতিমূর্তি যেন শাম্মি। কাহিনীর আবর্তে মিম এবং মিমের বাবার ভুমিকাটি ছিল এককথায় অনবদ্য।
একবিংশ শতাব্দীতে উন্নত দেশে বসবাস করেও কিছু মানুষ পুরুষতান্ত্রিক মানসিকতার উন্নতি করতে পারেনি, নারীকে তারা এখনো আসবাবপত্র মনে করে, ঘৃনা জানাই এমন মানসিকতার পশুদের। শুধু ঘৃনা নয় শ্রদ্ধাও জেগেছে শাহানের মত চরিত্রের জন্য, যে নারী ও তার সন্তানকে সন্মান করতে জানে, প্রয়োজনে শত অসুবিধার মাঝেও পাশে থাকে, সমাজে আমরা শাহানের মত প্রকৃত মানুষ চাই।

তবে খুশবুর বড় হওয়ার গল্প, মিমের প্রেম ও বিয়ের গল্প এবং শাশা’র মিলনের গল্প অল্প কয়েকটি লাইনে শেষ করে দিয়েছে তাসনুভা, বইটিতে কাস্টডি মামলা নিয়ে আলোচনা ছিলো, সেখানে মামলার আইনগত বিষয়গুলো আরেকটু বিস্তারিত হতে পারতো।
যা ইঙ্গিত করে এই কাহিনীর সবটুকু যেন শেষ হয়েও হয়নি। হয়ত অচিরেই আসছে এর কোন ধারাবাহিক কাহিনী। উপন্যাসের প্রধান বিষয়বস্তু ছিল সত্যের জয় হবেই। উপন্যাসের প্রতিপাতায় তারই মেসেজ ছিল।

সবাইকে বইটি পড়ার অনুরোধে রইল। ❤️
বইটি অর্ডার করতে চাইলে সরাসরি লেখকের সাথে যোগাযোগ করুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *