March 2, 2024

লীলাবতীর মৃত্যু – হুমায়ূন আহমেদ

—————২০২০ এর লেখা ———

  1. বইঃ লীলাবতীর মৃত্যু
    লেখকঃ হুমায়ূন আহমেদ
    প্রথম প্রকাশঃ ফেব্রুয়ারি ২০১৪
    প্রকাশকঃ অন্য প্রকাশ
    পৃষ্ঠা সংখ্যাঃ ৯৫

“কাঠপেন্সিল”, “রংপেন্সিল” “হিজিবিজি” ইত্যাদি বইগুলো প্রয়াত হুমায়ূন আহমেদ এর স্মৃতিচারণামূলক গ্রন্থ বা প্রবন্ধ সংকলন। “লীলাবতীর মৃত্যু” বইটিও একই ঘরানার বই কিন্তু এটি যে কারনে পূর্বে উল্লেখ করা বইগুলোর তুলনায় আলাদা বিশেষত্ব ধারন করেছে তা হলো বইটিতে আমাদের নবিজী হযরত মুহাম্মাদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম এর জীবনের কিছু অংশ তিনি গল্পাকারে তুলে ধরেছেন তাঁর “নবিজী” নামক গল্পে।

বইটির ভূমিকা লিখেছেন লেখকের স্ত্রী মেহের আফরোজ শাওন। তিনি নবিজী গল্পটি সম্পর্কে লিখেছেন, “নবিজী লেখাটির পেছনে একটা গল্প আছে। বাংলাবাজারে অন্যপ্রকাশ এর নতুন বিক্রয়কেন্দ্র উদ্বোধন অনুষ্ঠানে এক মাওলানা হুমায়ূন আহমেদকে বললেন, আপনার লেখা স্যার এত লোক আগ্রহ নিয়ে পড়ে, আপনি যদি আমাদের নবি-করিমের জীবনীটা লিখতেন, তাহলে বহু লোক লেখাটি আগ্রহ করে পাঠ করত। আপনি খুব সুন্দর করে তার জীবনী লিখতে পারবেন।…….নবিজী লেখাটি শুরু করেছিলেন তিনি। পুরোটা লিখে যেতে পারেন নি। লেখাটি এই প্রথম গ্রন্থভুক্ত হলো।”

লেখক হুমায়ূন আহমেদ এর জাদুকরী ক্ষমতা তাঁর সচরাচর প্রকাশিত উপন্যাসগুলির তুলনায় অধিক তাৎপর্যবাহী ভিন্নধর্মী কোন রচনাতে প্রকাশ পায় বেশি। যাই লিখে থাকুন না কেন তা পাঠককে শেষ পর্যন্ত ধরে রাখে। “নবিজী” লেখাটা তার প্রমাণ। “নবিজী” লেখার কৈফিয়ত হিসেবে তিনি জানিয়েছেন-
“যে মহামানব করুনাময়ের এই বাণী আমাদের কাছে নিয়ে এসেছেন, আমি এই অকৃতী তাঁর জীবনী আপনাদের জন্যে লেখার বাসনা করেছি। সব মানুষের পিতৃঋণ-মাতৃঋণ থাকে। নবিজীর কাছেও আমাদের ঋণ আছে। সেই বিপুল ঋণ শোধের অতি অক্ষম চেষ্টা।”

এটি ছাড়াও আরো আঠারোটি লেখা বইটিতে সংকলিত হয়েছে। একেকটি একেক স্বাদের । ব্যক্তিগত দুঃখবোধ, একাত্তরের দুঃসময়ের আখ্যান, বিজ্ঞান বিষয়ক কৌতুহল উদ্দীপক কিছু ব্যাপারে লেখকের নিজস্ব তত্ত্ব বা ধারনা, ছোটবেলারকার স্মৃতি; সহকর্মী, বন্ধু, কাছের মানুষজনকে নিয়ে মজার কিছু ঘটনা আবার তৎকালীন বিশেষ কোনো ঘটনার তাৎক্ষনিক প্রতিক্রিয়াও পাঠক বইটিতে পাবেন।

“লীলাবতীর মৃত্যু” লেখাটির নামে বইটির নামকরন করা হয়েছে। লেখকের একটি কন্যাসন্তান জন্মের পর পরই মারা যায়। তার নাম রাখা হয়েছিল লীলাবতী। এই লীলাবতীকে নিয়েই লেখাটি রচিত হয়েছে।

আশা করছি বইটি ভালো লাগবে। ব্যক্তিগতভাবে এখানে সংকলিত কয়েকটি লেখা পূর্বে প্রকাশিত অন্যান্য বইয়ে পড়েছিলাম বিধায় সব গল্প আমাকে সেভাবে মুগ্ধ করতে পারেনি। তবুও যে ক’টি লেখা আগে পড়িনি, তা পড়ে চমৎকৃত হয়েছি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *